জন্ডিসের লক্ষণ এবং প্রতিকারের উপায় জেনে নেই

জন্ডিস মূলত কোন রোগ নয় এটি আসলে একটি রোগের লক্ষণ। যকৃতে প্রদাহ অথবা পিত্তাশয় , বা অগ্নাশয় এর বিভিন্ন সমস্যার উপসর্গই হলো জন্ডিস। জন্ডিস হওয়ার মাধ্যমে রক্তে বিলরুবিনের মাত্রা বেড়ে যায় সেই সাথে চোখের সাদা অংশ, ত্বক এবং অন্যান্য অঙ্গ হলদে ভাব হয়ে যায়। জন্ডিসের কোন সুনির্দিষ্ট চিকিৎসা নেই। প্রতিরোধের মাধ্যমেই এই জন্ডিস থেকে মুক্তির একমাত্র উপায়।

জন্ডিসের লক্ষণ

জন্ডিসের প্রধান লক্ষণ হল চোখ এবং প্রস্রাবের রং হলদে হয়ে যাওয়া। যদি সমস্যার বেশি হয়ে যায় তাহলে সমস্ত দেহ গারো হলদি বর্ণ হয়ে যায়। অনেক সময় পায়খানা সাদা হয়ে যায়, চুলকানি হতে পারে , এবং যকৃত শক্ত হয়ে যাওয়া সমস্যার সৃষ্টি হতে পারে। এছাড়াও জন্ডিসের কারণে শারীরিক দুর্বলতা, জ্বর, বমি ভাব, পেটব্যথা, এবং ক্ষুধা মন্দা ইত্যাদি হতে পারে। সাধারণত একজন জন্ডিস রোগীর উপসর্গ চার থেকে ছয় সপ্তাহ থাকতে পারে। সাধারণত জন্ডি চার সপ্তাহের মধ্যে ভালো হয়ে যায় যদি চার সপ্তাহের বেশি অধিক জন্ডিসের উপর স্বর্গ দেখা দেয় তাহলে বুঝতে হবে শরীরের অন্যান্য অংশের কারণে জন্ডিসের লক্ষণ দেখা দিচ্ছে। এজন্য আপনাকে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

গ্রীষ্মকালে সাধারণত জন্ডিসের প্রভাব বেড়ে যায়। কারণ গরমে পানি দূষিত হয় এবং বায়ু দূষিত হয়ে থাকে। খোলা শরবত পানির মাধ্যমে আমাদের দেহে জন্ডিসের ভাইরাস প্রবেশ করে।

 

জন্ডিস প্রতিকারের উপায়

  • পর্যাপ্ত বিশ্রামের মাধ্যমে জন্ডিস দ্রুত সারাতে সাহায্য করে থাকে
  • প্রচুর পরিমাণে পানি পান করতে হবে। বিশেষ করে ফলের রস ডিহাইড্রেশন প্রতিরোধে অত্যন্ত ভূমিকা পালন করে থাকে।
  • পুষ্টিকর খাবার খাওয়ার মাধ্যমে যেমন শাকসবজি, ফলমূল এবং অন্যান্য সুষম খাবার মাধ্যমে আমাদের জন্ডিস এর হাত থেকে মুক্তি দিয়ে থাকে।
  • চর্বিযুক্ত খাবার লিভারের উপর বেশ ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে। এজন্য আমাদের চর্বিযুক্ত খাবার এড়িয়ে চলতে হবে।
  • অ্যালকোহল আমাদের লিভারকে ক্ষতিগ্রস্ত করে তাই জন্ডিসের সময় লিভার ভালো রাখার জন্য অ্যালকোহল জাতীয় কোন খাবার খাওয়া যাবে না।
  • আখের রস জন্ডিসের জন্য অত্যন্ত কার্যরি একটি উপায়। আখের রস পান করার মাধ্যমে আমাদের জন্ডিস কমিয়ে আনতে পারি।
  • পেঁয়াজ জন্ডিসের জন্য খুবই একটি উপকারী।
  • লেবুর রস জন্ডিস চিকিৎসার জন্য খুবই একটি ঘরোয়া পদ্ধতি।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top